লেটেস্ট খবরবিনোদনভাইরাললাইফ স্টাইলঅফবিটরেসিপি

মাত্র ১৫ মাস বয়সে দুর্দান্ত কায়দায় তবলা বাজিয়ে সকলকে তাক লাগলো ছোট্ট খুদে, ভিডিও ভাইরাল

সোশ্যাল মিডিয়া ছাড়া বর্তমানে মানুষের এক মুহুর্ত কাটেনা। পড়াশোনা থেকে শুরু করে অফিসের কাজকর্ম সবই বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে। এমনকি সোশ্যাল মিডিয়াতে মানুষ অবসর সময় ...

Published on:

সোশ্যাল মিডিয়া ছাড়া বর্তমানে মানুষের এক মুহুর্ত কাটেনা। পড়াশোনা থেকে শুরু করে অফিসের কাজকর্ম সবই বর্তমানে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে। এমনকি সোশ্যাল মিডিয়াতে মানুষ অবসর সময় কাটানোর জন্যও ব্যবহার করে থাকে। এই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে বর্তমানে অনেক প্রতিভাবান বাচ্চা সকলের সামনে উঠে আসে।

WhatsApp Group   Join Now
Telegram Group   Join Now

অনেক বাচ্চাকে খেলা করতে কিংবা নাচ গান করতে দেখা গেলেও খুব কম বাচ্চাকেই তবলা বাজাতে দেখা যায়। কিন্তু সম্প্রতি একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়েছে যেখানে একটি খুদেকে তবলা বাজাতে দেখা গিয়েছে। আর নেটিজেনরা বেজায় খুশি তার তবলা বাজানোর স্টাইল দেখে। বাচ্চাদের তবলা বাজানোর ভিডিও পোস্ট করা হয়েছে Asif firdousi নামের একটি ইউটিউব চ্যানেল থেকে। ভিডিওটিতে তবলার সামনে একটি ছোট বাচ্চাকে বসে অসাধারণ ভঙ্গিমাতে তবলায় চাটি মারতে দেখা গিয়েছে। তার বয়স শুনলে আপনার চোখ কপালে উঠবে বাধ্য মাত্র ১৫ মাস বয়সে বড়দের মতো তবলা বাজিয়ে সুর তুলছে সে।

দেখে মনে হচ্ছে যে কোন বড় ওস্তাদকে যেন হার মানিয়ে দেবে সে। যেমন তার তবলার হাত তেমনি মিষ্টি দেখতে তাকে। বাচ্চাটি এতই ছোট যে ভালো করে তবে হাত দিতে পারছে না সে। ভবনে এই ছোট বয়সে যদি এমন ওস্তাদ হয় তবে বড় হলে কি হবে। আসলে এইসব বাচ্চাই ভগবানের এক একটি রূপ। প্রতিভাবান হয়েই এরা জন্মগ্রহণ করে। বাচ্চাটি যে শুধু তবলা বাজাতে তাই নয়, ব্যাকগ্রাউন্ডে একজন গান গাইছেন তবলা বাজাতে বাজাতে বাচ্চাটি সেই গানটিও গাওয়ার চেষ্টা করছে।

ভেবে দেখুন একটি বাচ্চা ভালো করে কথা বলতে শেখেনি সে তবলা বাজানোর সঙ্গে সঙ্গে গান গাওয়ার চেষ্টা করছে। ব্যাকগ্রাউন্ডে যে লোকটি গান গাইছে সেই লোকটি বলছে না ধিন ধিন না আর তার সাথে সাথে বাচ্চাটিও বলার চেষ্টা করছে“না ধিন ধিন না”। সত্যি নিজের চোখের সামনে না দেখলে এইটুকুনি বাচ্চার মধ্যেও এমন একটি প্রতিভা রয়েছে তা সত্যি অবিশ্বাস্য মনে হয়। একথা নিশ্চিত করে বলাই যায় এই খুদে তবলিয়া পরবর্তীকালে সত্যিই এক বড় বাপের তবলিয়া হবে।

About Author